পরিবেশ দূষন করে চলছে কালির কারখানার রমরমা  ব্যবসা,দেখার কেউ নেই

পরিবেশ দূষন করে চলছে কালির কারখানার রমরমা  ব্যবসা,দেখার কেউ নেই

মেহেদী হাসান( গাজীপুর ): ব্যবসা করা ভালো । তবে সেটা সাধারণ মানুষ আর প্রাকৃতিক পরিবেশ ধংশ করে নয়। কয়লা থেকে কালি তৈরির পদ্ধতিটা যেন কেমন হয়েছে। বলছি, গাজীপুরের মৌচাক চা- বাগান এলাকার ইয়াসমিন রাব্বানীর কালির কারখানার কথা।

ঘনবসতির এই এলাকায় সাধারনদের তোয়াক্কা না করে চলছে কারখানা। সাস্থ্য বিধির বালাই নাই। পরিবেশকে করছে দূষিত। অস্থির হয়েছে সাধারণ জনজীবন।

বসতি এলাকায় কারখানা কীভাবে চলছে জানতে চাইলে মালিক পক্ষ বলেন, এলাকার করো কোন অভিযোগ নেই। আর অভিযোগ থাকলেও কেউ কিছু করতে পারবে না।

কাগজপত্রের বিষয়ে জানতে চাওয়া হলে বলেন, বাংলাদেশের বড় এক কর্মকর্তার আত্মীয়। তাই কাগজ লাগেনা।

এবিষয়ে এলাকা বাসি বলেন, এই কারখানার কারনে ঘর বাড়ী সব অন্ধকার। সব জায়গায় শুধু কালি আর কালি। অনেক অনুরোধেও তারা কারখানা বন্ধ করে না।

নগর বিশ্লেষকেরা বলেন, প্রাকৃতিক বাতাসে যখন কালি লাগে তখন অক্সিজেন দূষিত হয় ফলে মানুষ তা গ্রহনের পরে নানা রকম অসুস্থ হয় এমন কী মারাও যেতে পারে। সাস্থ্যের ঝুঁকি প্রবল হারে বাড়ছে।  এ ছাড়াও, কাপাসিয়া আমরাইতে পরিবেশ দূষন করে গাছ পুড়িয়ে কয়লার কারখানা চালাচ্ছে মিলন নামে এক যুবক। তথ্য সংগ্রহে তার কারখানায় গেলে  মিলন সাংবাদিকদের অসন্মান জনক কথা বলে।

নানান অসুবিধার কারনে কারখানাটি বন্ধ করার জন্য সংশ্লিষ্ট কর্তৃপক্ষের নিকট এলাকাবাসী ও সূষিল সমাজের দাবি।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published.




কপিরাইট © ২০২১ || দি ডেইলি আজকের আলোকিত সকাল - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত