শিরোনাম :
কেন্দুয়া কৈজানি নদীতে ঝাঁপ দেয়া হালিমের লাশ উদ্ধার খুলনায় ট্রাক-কাভার্ডভ্যান মুখোমুখি সংঘর্ষে চালক নিহত শাহজাদপুরে পিপিভি নারীকে চাকরিতে পূর্ণবহালের দাবীতে মানববন্ধন ও সমাবেশ  শেরপুরে বন বিভাগের রেঞ্জ কর্মকর্তার বিচার দাবিতে মানববন্ধন সালথায় পেঁয়াজের আড়তে ভোক্তা অধিদপ্তরের তদারকি দিঘলিয়ায় সাবেক প্রেসিডেন্ট হুসাইন মুহাম্মদ এরশাদের ৫ম মৃত্যু বার্ষিকী পালন মিরপুর বিআরটিএ কার্যালয়ে অভিযান ; ২ দালালের সাজা কেন্দুয়ায় ফুটবল প্রীতিম্যাচ অনুষ্ঠিত কেন্দুয়ায় বাবার বাড়ি পুড়িয়ে দিল ছেলে ধীরগতিতে কমছে যমুনার পানি বানভাসির মধ্যে বিশুদ্ধ পানিসহ তীব্র খাদ্য সংকট
ফরিদপুর ব্রাহ্মণকান্দা প্রভু জগদ্বন্ধু সুন্দরের আঙ্গিনায় এই তাপদাহে প্রায় শতবর্ষের বৃক্ষ কেটে ফেলা হলো

ফরিদপুর ব্রাহ্মণকান্দা প্রভু জগদ্বন্ধু সুন্দরের আঙ্গিনায় এই তাপদাহে প্রায় শতবর্ষের বৃক্ষ কেটে ফেলা হলো

পার্থ প্রতিম ভদ্র:
যখন ফরিদপুরে ৪২-৪৩ ডিগ্রি সেলসিয়াস তাপদাহে মানুষের জীবন বিপর্যস্ত তখন দিনে ও রাতে একটু বেঁচে থাকার একটু নিঃস্বাস নেবার আশ্রয় স্থল মানুষ ও জীবের বৃক্ষের ছায়া। তখনই ফরিদপুর শহরের শ্রী শ্রী প্রভু জগদ্বন্ধু সুন্দরের বাল্য ও কৈশর লীলা ভূমি ব্রহ্মণকান্দা আঙ্গিনা থেকে কেটে ফেলা হলো প্রায় শত বর্ষি আম বৃক্ষ সহ অন্যান্য বৃক্ষ।
এই বৃক্ষ কেটে ফেলায় দারুন ভাবে ক্ষুব্ধ এলাকার ভক্তবৃন্দ। সরেজমিন গিয়ে দেখা যায় ব্রহ্মণকান্দা প্রভু জগদ্বন্ধু সুন্দরের মন্দিরের পিছনে একটি শত বর্ষি আম গাছ ও মাঝারি ধরণের তিনটি অন্য গাছ এবং আঙ্গিনার পুকুর পাড়ে প্রায় শত বর্ষি আরেকটি কড়ই গাছ কেটে ফেলেছেন মৃনাল বন্ধু ব্রহ্মচারী। অথচ গাছ দুটোর নিচে অসংখ্য মানুষ এই তাপদাহে আশ্রয়  নিত। ফরিদপুর জেলা পূজা উদযাপন পরিষদের সাবেক সহ-সভাপতি ও ব্রহ্মণকান্দা আঙ্গিনার ভূমি দাতা পরিবার সদস্য তাপস কুমার দত্ত ক্ষুদ্ধ প্রতিক্রিয়ায় জানান, এটা একজন সাধুর কাজ হলো? এখানে এই গাছটি কেটে ফেলায় কেউই মন্দির সংলগ্ন ঘাটলায় বেশিক্ষণ দাড়াতে পারছে না। আমরা এ বিষয়ে মহানাম সম্প্রদায়ের উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষকে জানিয়েছি। ঘটনা স্থলে অভিযুক্ত মৃনাল বন্ধুর সাথে যোগাযোগের চেষ্টা করলে তাকে পাওয়া যায়নি।
গাছ কাটার ঘটনায় মহানাম সম্প্রদায়ের, ফরিদপুর শ্রীধাম শ্রী অঙ্গনের সাধারণ সম্পাদক সাথে মুঠো ফোনে কথা হলে তিনি বলেন, কবে কখন গাছ কাটলো আমি জানি না। এ বিষয়ে আমার সাথে কোন আলোচনা করেনি মিনাল বন্ধু ব্রহ্মচারী।
এলাকার অসংখ্য মানুষ মহানাম সম্প্রদায়ের উদ্ধর্তন কর্তৃপক্ষের কাছে এই ধরনের অমানবিক কাজের জন্য মৃনাল বন্ধু ব্রহ্মচারীর শাস্তি দাবী করেছে।

Please Share This Post in Your Social Media

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *




কপিরাইট © ২০২১ || দি ডেইলি আজকের আলোকিত সকাল - সর্বসত্ত্ব সংরক্ষিত